উচিৎ কথা:-একজন চরম ঘুষখোরের কাহিনী।

সাত কাহন!
সরকারি কর্মকর্তা, কর্মচারী যা মাইনে(বেতন) পায় তা দিয়ে তাদের পেট(সংসার) চালানো বড় দায়!😭
কিন্তু সবাই সরকারি চাকুরীজীবি হতে চাই কেন???
আমার মতে:-
👍ঘুষ খাওয়া যায়(যারা ঘুষখোর নামে পরিচিত,যারা খায় না তাদের বলছি না)

👍চাকুরী শেষে বড় অংকের টাকা পাওয়া যায়।

👍একটা সরকারি পদবি পাওয়া যায়।(যাতে লোকে সম্মান করে, বিয়ের জন্য মেয়ে পাওয়া যায় ভরি ভরি।)

মূল ঘটনাতে আসি:-

খাজনার চেয়ে বাজনা বেশি!!!😭😭😭
এক সপ্তাহ ধরে (২২-৩১/১০/২০১৬ইং)ঘুরছি নায়েব অফিসে খাজনা দেওয়ার জন্য।এক কৃষি লোন পাশ করাতে খাজনা দিতে হবে কৃষি জমির।তা না হলে লোন হবে না।খাজনা অফিসে যেয়ে খোঁজ নিয়ে জানা গেলো, আমাদের খাজনা মওকুফ করানো আছে ১৯৯৯সাল থেকে।কিন্তু তার আগের পাঁচ বছর খাজনা দেওয়া হয়নি!তাই সেটা দিতে হবে, তারপরও আবার বসতবাড়ির(বাস্তু ভীটার) খাজনা আগে কাটতে হবে।তা না হলে দাখিলা পেপার(খাজনার রশিদ) দিবে না।কি আর করা সেদিন আর হলো না।
পরের দিন গেলাম টাকা নিয়ে,যেয়ে শুনি সেদিন(২২/১০/২০১৬ইং) দাখিলা পেপার নাই।সামনের রবিবারে(৩০/১০/২০১৬ইং) আসেন।রবিবারে গেলাম বলে বিকালে আসেন,বিকালে গেলাম বলে কালকে সকালে আসেন,অনেক ঝামেলা আছে, অনেক খতিয়ান বই বের করে দেখতে হবে।তখন জোর করে কাকুতি মিনুতি করে বললাম”ভাই আজকে করে দেন,আপনার কাজ তো কমছে না,বরং বেড়েই চলেছে,পারলে আজ করে দেন।” লোকটা আমার মুখের দিকে তাকিয়ে চায়ের অর্ডার দিলো।চা এলো,চা খাচ্ছি আর গল্প করছি।ফাঁকে ফাঁকে ছেঁড়া খতিয়ান বই দেখছে।আর আব্বুকে বলছে চাচা অনেক বই দেখে দাগ মিলিয়ে মিলিয়ে দাখিলা কাটতে হবে।আজ হবে না,আমি দেখে কাজ শেষ করে রাখি।আপনি সকালে এসে নিয়ে যেয়েন।তারপন ক্যালকুলেটর চেপে হিসাব করে বলল,আজ টাকা টা দিয়ে যান।আমরা বললাম, কত? সে ক্যালকুলেটরে ভালো করে দেখে বলল 💵৪৩৯৩/= টাকা মাত্র।এ কথা শুনে আমার আর আব্বুর তো মাথা নষ্ট।কারন গতদিন(২২/১০/২০১৬ইং) বলল চাচা সব জমির খাজনা 💵ছয় হাজার মত লাগবে।আজ যেখানে তিন ভাগের এক ভাগ খাজনা দিবো এত্ত?😲😲😲
আব্বু পকেটে 💵তিন হাজার ছিলো,লোকটার হাতে দিয়ে বললাম,কাজ টা করেন বাকি টাকা কাল সকালে এসে দিবো।লোকটা ধমক দিয়ে বলছে, এই ভাবে বলে সবাই চলে যায় আর সব টাকা আমার পকেট থেকে দিতে হয়।বেচারার কথা শুনে মনে হলো কত ভালো মানুষ!লোকের টাকা নিজের পকেট থেকে দিয়ে দেয়।সেখানে অনেক লোক বসা, তার মধ্য এক ভদ্র লোক বলল,যান কাল দিয়ে দিবেন।আমরা দুই বাপ-বেটা বের হয়ে চিন্তায় পড়ে গেলাম।কারণ লোন যা পাবো তাতে খাজনার টাকা পরিশোধ করেই শেষ।😭😭
এখনো 💵দেড় হাজার টাকা লাগবে খাজনার।ভাবতে ভাবতে চলে আসলাম বাড়ি।পরদিন (৩১/১০/২০১৬ইং) সকালে সবার আগে গিয়ে বসে আছি,কারণ সবার আগে আমাদের কাগজ দিয়ে দিবে।কিন্তু যেয়ে দেখি, লোকটার অফিস ১০টায় আসলো ১১টায়।কোথায় ছিলেন ভাই এত ক্ষণ?বললো,উপজেলাতে।তার আগে একটা লোক তাকে বাইরে থেকে কি যেন বলল সে এসে তার কাজ আগে শুরু করে দিলো।কথা ছিলো কি আর করলো কি? বললাম ভাই আজ করে দেন তা না হলে আমাদের সমস্যা আছে।বলল আপনাদেরই কাজ গতকাল(৩০/১০/২০১৬ইং) রাত নয়টা পর্যন্ত করেই বাড়ি গিয়েছি!😲😲শুনে খুশি হলাম।লোকটার কাজ শেষ করে,চায়ের অর্ডার দিলো। চা আসলো কাজ করছে এবার আমাদের।যাক শান্তি পেলাম দেখে।দাখিলা কাটা শেষ,গতকালের বাকি টাকা তার হাতে দিতেই;সে বড় নোট টা(💵১০০০) রেখে ছোট নোট গুলো(💵৪০০) আমাদের দিয়ে দিলো।দাখিলা পেপার পেলাম সাতটা।বাইরে এসে মহা খুশি কারন টাকা কিছু কম নিয়েছে। সাতটা পেপার মিলে মোট টাকা হলো-💵৩৮৭/=টাকা মাত্র।আমাদের মাথাতে তখন কাজ করছে লোন নিতে হবে আজ, না হলে অফিস বন্ধ হয়ে যাবে, তাড়াতাড়ি সেখান থেকে প্রস্থান। কৃষি ব্যাংকে যেতে যেতে আমি আর আব্বু লোক টা কে যে কত গাল মন্দ আর মন থেকে অভিশাপ দিলাম সে আল্লাহ পাক ভালো জানে।😭😭😭
চার হাজার টাকার মধ্যে সরকারের কোষাগারে জমা হবে -💵৩৮৭/=টাকা মাত্র? 😲😲😲
আর বাদবাকি টাকা কই যাবে?😒
পরে ফোন দিয়ে জানতে চাইলাম,বললো বিবিধ খরচ বাবদ সব টাকা ব্যাংকে জমা হবে!এই কথা শুনে আব্বু বলল”খাজনার চেয়ে বাজনা বেশি!”😭😭😭
✋অতিরিক্ত সংযুক্ত।
লোকটার ছেলে নাকি ঢাকার নটোরডেম কলেজে পড়ে,তার নিজের ১২৫সিসি ডিসকভার মোটরসাইকেল আছে,শরীরের স্বাস্থ্য মাশাল্লাহ,আর কোথায় কি আছে আল্লাহ মালুম!😲😲সব দেখে-শুনে মনে হলো এই টাকা কোন ব্যাংকে জমা হবে তা আল্লাহ ভালো জানে?😭😭😭
সব টাকা মুনাফা সহ তোলা থাকলো সেই সৃষ্টি কর্তার কাছে!✌✌✌
Md Shahin Akter
ঝিকরগাছা,যশোর।
তারিখ:-১/১১/২০১৬ইং
রোজ:-মঙ্গল বার।

Advertisements

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out /  Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out /  Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out /  Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out /  Change )

Connecting to %s